SSC Scam: নিজাম প্যালেসে SSC-এর ২ প্রাক্তন চেয়ারম্যানকে তলব, মুখোমুখি বসিয়ে জিজ্ঞাসাবাদ

<p><strong>প্রকাশ সিনহা, কলকাতা:</strong> সিবিআইয়ের তলবে নিজাম প্যালেসে এসএসসি-র ২ প্রাক্তন চেয়ারম্যান। নিজাম প্যালেসে এসএসসি-র ২ প্রাক্তন চেয়ারম্যান চিত্তরঞ্জন মণ্ডল ও প্রদীপকুমার শূর। নিয়ম না মেনে এই ২ জনকে পদ থেকে সরানো হয়, তদন্তে এসেছে এই তথ্য, খবর সিবিআই সূত্রে। ২ জনকে সুবীরেশ ভট্টাচার্যর মুখোমুখি বসিয়ে করা হতে পারে জিজ্ঞাসাবাদ, খবর সূত্রের। সুবীরেশ ভট্টাচার্যর অধীনে কাজ করা ৪ আধিকারিককেও তলব করল সিবিআই। সুবীরেশের নির্দেশ পালন করেছেন <a title=”এসএসসি” href=”https://bengali.abplive.com/topic/ssc” data-type=”interlinkingkeywords”>এসএসসি</a>-র ৪ কর্মী, খবর সূত্রের। সুবীরেশের মুখোমুখি বসিয়ে ৪ জনকে জিজ্ঞাসাবাদের পরিকল্পনা, খবর সূত্রের।</p>
<p><strong>অন্য একটি মামলা:</strong></p>
<p>গ্রুপ-সি নিয়োগ দুর্নীতি মামলায় সুবীরেশ ভট্টাচার্যকে হেফাজতে পেয়েছে CBI। তাঁর সম্পর্কে আরও বিস্তারিত জানতে, সোমবার নিজাম প্যালেসে ডেকে পাঠানো হয়েছিল স্কুল সার্ভিস কমিশনের আরও দুই প্রাক্তন চেয়ারম্যান চিত্তরঞ্জন মণ্ডল এবং প্রদীপকুমার শূরকে। ডাকা হয়েছিল SSC-র চারজন আধিকারিক এবং কর্মীকেও। যাঁরা একসময় সুবীরেশের অধীনে কাজ করেছিলেন। সিবিআই (CBI) সূত্রে দাবি, বেশিরভাগ প্রশ্নের উত্তরেই চুপ করে থাকছেন SSC’র প্রাক্তন চেয়ারম্য়ান সুবীরেশ। তাই পাল্টা কৌশল নেওয়া হয়। সুবীরেশ সম্পর্কে জানতে, ডাকা হয় তাঁর একদা &nbsp;সহকর্মী ৬ জনকে। চিত্তরঞ্জন ও প্রদীপকুমারকে, সুবীরেশের মুখোমুখি বসানো না হলেও, SSC-র বাকি চারজন আধিকারিক ও কর্মীকে প্রাক্তন চেয়ারম্যানের মুখোমুখি বসিয়ে জিজ্ঞাসাবাদ করা হয়েছে বলে CBI সূত্রে দাবি। তাঁদের কাছে জানতে চাওয়া হয়, সুবীরেশ ভট্টাচার্য কী কী নির্দেশ দিতেন? অবৈধভাবে চাকরি দেওয়ার ক্ষেত্রে তাঁদের কোনওভাবে কাজে লাগানো হয়েছিল কি না? সুবীরেশের বিরুদ্ধে যা যা নথিপত্র মিলেছে, সেগুলিও তাঁদের দেখানো হয়েছে বলে সূত্রের খবর। গত শুক্রবার SSC-র প্রাক্তন চেয়াম্যান সুবীরেশ ভট্টাচার্যকে হেফাজতে চেয়ে, আদালতে CBI দাবি করেছিল, গ্রুপ সি-তে নিয়োগ দুর্নীতিকাণ্ডে সুবীরেশ ভট্টাচার্যর যোগসাজশের প্রমাণ পেয়েছেন তাঁরা। তাই কয়েকজনের সঙ্গে মুখোমুখি বসিয়ে তাঁকে জেরা &nbsp;করতে চায় CBI, যা জেলে সম্ভব নয়। এরপরই শনিবার, SSC-র প্রাক্তন চেয়ারম্যানকে ২২ ডিসেম্বর পর্যন্ত সিবিআই (CBI) হেফাজতে পাঠানোর নির্দেশ দেয় নিম্ন আদালত।কিন্তু কেন্দ্রীয় তদন্তকারী সংস্থা সূত্রে দাবি, দুর্নীতি নিয়ে কোনও প্রশ্নের যথাযথ উত্তর দিচ্ছেন না সুবীরেশ। বেশিরভাগ সময়ই চুপ করে থাকছেন। এই প্রেক্ষাপটে SSC-র দুই প্রাক্তন চেয়াম্যান-সহ ৬ জনকে ডেকে পাঠানো হয়।&nbsp;</p>
<p><strong>বিস্ফোরক দাবি:</strong><br />২০১৪&rsquo;র জানুয়ারি থেকে ২০১৮&rsquo;র জুলাই পর্যন্ত SSC&rsquo;র চেয়ারম্যান ছিলেন সুবীরেশ। তাঁর আগে, ২০১৩-র অক্টোবর থেকে ২০১৪-র জানুয়ারি পর্যন্ত ওই পদে ছিলেন প্রদীপকুমার শূর এবং ২০১১&rsquo;র জুন মাস থেকে ২০১৩-র অক্টোবর পর্যন্ত চেয়ারম্যান চিত্তরঞ্জন মণ্ডল। যে চিত্তরঞ্জন মণ্ডল, এবিপি আনন্দকে দেওয়া এক্সক্লুসিভ সাক্ষাৎকারে বিস্ফোরক দাবি করেছিলেন। তিনি বলেন, ‘অনেক সুপারিশ চালককে দিয়ে নেতারা পাঠিয়েছে। প্যাডের পর প্যাড। প্রচুর সুপারিশ। বিভিন্ন জায়গা থেকে প্রচন্ড চাপ ছিল। কোথাও তালিকা করে দেওয়া, চাকরি করে দেওয়া, &nbsp;নেতারাই সুপারিশ করত। তাদের সবাইকে চিনি। চাপ বাড়তেই থাকল। নতি স্বীকার করিনি। কিন্তু, চাপ বাড়তেই থাকল। অক্টোবর মাসে পার্থ চট্টোপাধ্যায় ডাকলেন। বললেন, ছেড়ে দিন।'</p>
<p>তাহলে কি দুর্নীতির পথে কাঁটা হয়ে দাঁড়িয়েছিলেন চিত্তরঞ্জন মণ্ডল, প্রদীপকুমার শূর? সেই কারণেই কি একে একে তাঁদের সরিয়ে সুবীরেশ ভট্টাচার্যকে SSC-র চেয়ারম্যান পদে বসানো হয়েছিল? সূত্রের দাবি, এই সব প্রশ্নের উত্তর খুঁজতেই এদিন দুই প্রাক্তন চেয়ারম্যানকে জিজ্ঞাসাবাদ করা হয়। সূত্রের দাবি, এদিন যাঁদের জিজ্ঞাসাবাদ করা হয়, তাঁদের উত্তরকে হাতিয়ার করেই সুবীরেশের বিরুদ্ধে ঘুঁটি সাজাতে চাইছে CBI</p>
<p><a title=”আরও পড়ুন: ফের প্রকাশ্যে দলীয় কোন্দল, চেয়ারম্য়ানকে ইস্তফা দেওয়ার নির্দেশ” href=”https://bengali.abplive.com/district/paschim-medinipur-district-tmc-ordered-kharagpur-municipality-chairman-to-resign-from-the-post-943085″ target=”_blank” rel=”noopener”>আরও পড়ুন: ফের প্রকাশ্যে দলীয় কোন্দল, চেয়ারম্য়ানকে ইস্তফা দেওয়ার নির্দেশ</a></p>
<p>&nbsp;</p>